ঢাকা ১০:৩১ অপরাহ্ন, শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ১৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
দুমকিতে আন্তঃ উপজেলা ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠান। মুন্সীগঞ্জ পৌর নির্বাচনে আমিরুল ইসলাম এর নির্দেশে জগ মার্কার গনসংযোগ রাজধানীর বেইলি রোডে আগুন লাগার ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে মামলা করেন। “গুলশানে বিশ্বমানের জুয়েলারী শোরুম চালু করছে ডায়মন্ড ওয়ার্ল্ড” ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের চিটাগাং রোড সিমরাইল ট্রাক ও ইজিবাইকের সংঘর্ষে এক বৃদ্ধার মৃত্যু ও আহত ২ “সীমানা ছাড়িয়েআকিজ পাইপস অ্যান্ড ফিটিংস এখন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে” ” অরক্ষিত ও অনিয়ন্ত্রিত ভবনের কারণে অনেক তাজা স্বপ্ন পুড়ে নিঃস্ব হলো অনেক পরিবার চসিক মেয়রের উদ্যোগে খেলার মাঠ পেল হালিশহরের শিশুরা বেইলি রোডে অগ্নিকাণ্ডের নিহত সাংবাদিক বৃ‌ষ্টি খাত‌ুন যেভা‌বে হ‌লো অ‌ভিশ্রু‌তি শাস্ত্রী চিঠি লিখে পরিবারের কাছে দোয়া ও প্রমিকার’কে চির বিদায় জানিয়ে যুবকের আত্মহত্যা

চাঁদপুর জেলার শাহরাস্তিতে এইচএসসিতে পাসের হার ৯৩.৫১ % ও আলিমে ৯৮.২৩%

রাফিউ হাসান (বিশেষ প্রতিনিধি)ঃ শাহরাস্তি উপজেলায় উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় পাসের হার ৯৩.৫১%। চলতিবছরের এইচএসসি পরীক্ষায় ৫টি মহাবিদ্যালয়ের ১ হাজার ১ জন শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। এদের মধ্যে ৯ শ ৩৬ জন শিক্ষার্থী কৃতকার্য হয়েছে।

১৭ জুলাই বুধবার প্রকাশিত ফলাফল থেকে দেখা যায়, এইচএসসিতে অংশ নেয়া শিক্ষার্থীদের মধ্য থেকে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৮ জন। তন্মধ্যে, ৫ জন জিপিএ-৫ পেয়েছে মেহের ডিগ্রী কলেজ থেকে, ২ জন করফুলেন্নেছা মহিলা কলেজ থেকে বাকি ১ জন সূচীপাড়া ডিগ্রী কলেজ থেকে।
মহাবিদ্যালয়গুলো থেকে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে জানা যায় যে, চিতোষী ডিগ্রী কলেজ থেকে ২৯১ জন শিক্ষার্থী এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়। তন্মধ্যে ২৮৫ জন কৃতকার্য হয়। পাসের হার ৯৭.৯৪%। করফুলেন্নেছা মহিলা কলেজ থেকে ১৬৩ জন শিক্ষার্থী এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়। তন্মধ্যে ১৫৫ জন কৃতকার্য হয়। পাসের হার ৯৫.০৯%। মেহের ডিগ্রী কলেজ থেকে ১৬৭ জন শিক্ষার্থী এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়। তন্মধ্যে ১৬৪ জন কৃতকার্য হয়। পাসের হার ৯৮.২০%। সূচীপাড়া ডিগ্রী কলেজ থেকে ২৯৮ জন শিক্ষার্থী এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়। তন্মধ্যে ২৫১ জন কৃতকার্য হয়। পাসের হার ৮৪.২৩%। খিলাবাজার স্কুল এন্ড কলেজ থেকে ৮২ জন শিক্ষার্থী এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়। তন্মধ্যে ৮১ জন কৃতকার্য হয়। পাসের হার ৯৮.৭৮%।

এদিকে,আলিম পরীক্ষায় পাশের হার ৯৮.২৩%। চলতি বছরের আলিম পরীক্ষায় উপজেলার ১০টি মাদ্রাসার ২৮৩ জন শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। এদের মধ্যে ২৭৮ জন শিক্ষার্থী কৃতকার্য হয়েছে। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৪ জন। শতভাগ পাস প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ৬ টি। শতভাগ পাস করা মাদ্রাসাগুলো হলো ভোলদিঘী কামিল মাদ্রাসা, শাহরাস্তি চিশতিয়া আলিম মাদ্রাসা, চিতোষী সুলতানিয়া ফাজিল মাদ্রাসা, রাগৈ ইসলামিয়া আলিম মাদ্রাসা, নুনিয়া ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসা, শেখ ফজিতুন্নেছা মুজিব মহিলা আলিম মাদ্রাসা।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আহসান উল্ল্যা চৌধুরী বলেন, শিক্ষক, অভিভাবক ও শিক্ষার্থীদের অক্লান্ত পরিশ্রমের ফল এটি। প্রতি বছর পাসের হার বাড়ছে। আমরা কলেজগুলো মনিটরিংয়ের মাধ্যমে শিক্ষার মান উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছি।

উল্লেখ্য, গত ১ এপ্রিল থেকে ১২ মে পর্যন্ত এইচএসসি তত্ত্বীয় পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। ২১ মে’র মধ্যে সব বিষয়ের ব্যবহারিক পরীক্ষা নেয়া হয়।

Tag :

জনপ্রিয় সংবাদ

দুমকিতে আন্তঃ উপজেলা ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠান।

চাঁদপুর জেলার শাহরাস্তিতে এইচএসসিতে পাসের হার ৯৩.৫১ % ও আলিমে ৯৮.২৩%

আপডেট টাইম ০২:৫৯:১৭ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০১৯

রাফিউ হাসান (বিশেষ প্রতিনিধি)ঃ শাহরাস্তি উপজেলায় উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় পাসের হার ৯৩.৫১%। চলতিবছরের এইচএসসি পরীক্ষায় ৫টি মহাবিদ্যালয়ের ১ হাজার ১ জন শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। এদের মধ্যে ৯ শ ৩৬ জন শিক্ষার্থী কৃতকার্য হয়েছে।

১৭ জুলাই বুধবার প্রকাশিত ফলাফল থেকে দেখা যায়, এইচএসসিতে অংশ নেয়া শিক্ষার্থীদের মধ্য থেকে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৮ জন। তন্মধ্যে, ৫ জন জিপিএ-৫ পেয়েছে মেহের ডিগ্রী কলেজ থেকে, ২ জন করফুলেন্নেছা মহিলা কলেজ থেকে বাকি ১ জন সূচীপাড়া ডিগ্রী কলেজ থেকে।
মহাবিদ্যালয়গুলো থেকে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে জানা যায় যে, চিতোষী ডিগ্রী কলেজ থেকে ২৯১ জন শিক্ষার্থী এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়। তন্মধ্যে ২৮৫ জন কৃতকার্য হয়। পাসের হার ৯৭.৯৪%। করফুলেন্নেছা মহিলা কলেজ থেকে ১৬৩ জন শিক্ষার্থী এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়। তন্মধ্যে ১৫৫ জন কৃতকার্য হয়। পাসের হার ৯৫.০৯%। মেহের ডিগ্রী কলেজ থেকে ১৬৭ জন শিক্ষার্থী এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়। তন্মধ্যে ১৬৪ জন কৃতকার্য হয়। পাসের হার ৯৮.২০%। সূচীপাড়া ডিগ্রী কলেজ থেকে ২৯৮ জন শিক্ষার্থী এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়। তন্মধ্যে ২৫১ জন কৃতকার্য হয়। পাসের হার ৮৪.২৩%। খিলাবাজার স্কুল এন্ড কলেজ থেকে ৮২ জন শিক্ষার্থী এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়। তন্মধ্যে ৮১ জন কৃতকার্য হয়। পাসের হার ৯৮.৭৮%।

এদিকে,আলিম পরীক্ষায় পাশের হার ৯৮.২৩%। চলতি বছরের আলিম পরীক্ষায় উপজেলার ১০টি মাদ্রাসার ২৮৩ জন শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। এদের মধ্যে ২৭৮ জন শিক্ষার্থী কৃতকার্য হয়েছে। জিপিএ-৫ পেয়েছে ৪ জন। শতভাগ পাস প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ৬ টি। শতভাগ পাস করা মাদ্রাসাগুলো হলো ভোলদিঘী কামিল মাদ্রাসা, শাহরাস্তি চিশতিয়া আলিম মাদ্রাসা, চিতোষী সুলতানিয়া ফাজিল মাদ্রাসা, রাগৈ ইসলামিয়া আলিম মাদ্রাসা, নুনিয়া ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসা, শেখ ফজিতুন্নেছা মুজিব মহিলা আলিম মাদ্রাসা।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আহসান উল্ল্যা চৌধুরী বলেন, শিক্ষক, অভিভাবক ও শিক্ষার্থীদের অক্লান্ত পরিশ্রমের ফল এটি। প্রতি বছর পাসের হার বাড়ছে। আমরা কলেজগুলো মনিটরিংয়ের মাধ্যমে শিক্ষার মান উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছি।

উল্লেখ্য, গত ১ এপ্রিল থেকে ১২ মে পর্যন্ত এইচএসসি তত্ত্বীয় পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। ২১ মে’র মধ্যে সব বিষয়ের ব্যবহারিক পরীক্ষা নেয়া হয়।