ঢাকা ১০:০৪ অপরাহ্ন, শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ১৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
দুমকিতে আন্তঃ উপজেলা ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠান। মুন্সীগঞ্জ পৌর নির্বাচনে আমিরুল ইসলাম এর নির্দেশে জগ মার্কার গনসংযোগ রাজধানীর বেইলি রোডে আগুন লাগার ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে মামলা করেন। “গুলশানে বিশ্বমানের জুয়েলারী শোরুম চালু করছে ডায়মন্ড ওয়ার্ল্ড” ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের চিটাগাং রোড সিমরাইল ট্রাক ও ইজিবাইকের সংঘর্ষে এক বৃদ্ধার মৃত্যু ও আহত ২ “সীমানা ছাড়িয়েআকিজ পাইপস অ্যান্ড ফিটিংস এখন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে” ” অরক্ষিত ও অনিয়ন্ত্রিত ভবনের কারণে অনেক তাজা স্বপ্ন পুড়ে নিঃস্ব হলো অনেক পরিবার চসিক মেয়রের উদ্যোগে খেলার মাঠ পেল হালিশহরের শিশুরা বেইলি রোডে অগ্নিকাণ্ডের নিহত সাংবাদিক বৃ‌ষ্টি খাত‌ুন যেভা‌বে হ‌লো অ‌ভিশ্রু‌তি শাস্ত্রী চিঠি লিখে পরিবারের কাছে দোয়া ও প্রমিকার’কে চির বিদায় জানিয়ে যুবকের আত্মহত্যা

পাঁচ নারীর হাতে রোকেয়া পদক তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী

ফাইল ছবি

মাতৃভূমির খবর ডেস্ক :  নারীর ক্ষমতায়নে বিভিন্নভাবে অবদান রাখায় এ বছর বেগম রোকেয়া পদক পেলেন পাঁচ নারী। আজ রবিবার সকালে বেগম রোকেয়া দিবস-২০১৮ উপলক্ষে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে এক অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই পদক বিতরণ করেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, মনে রাখতে হবে সংসার সুখের হয় রমনির গুণে। মেয়েরা বেশি আয়ুষ্কালের হয়। বেশি কষ্ট সহিষ্ণু হয়। উন্নয়নের মূল স্রোতধারায় তাদের অংশগ্রহণ বাড়াতে আমরা স্থানীয় সরকারের নারীর অংশগ্রহনের কোট ৩০ শতাংশ নিশ্চিত করেছি। মাতৃত্বকালীন ছুটিসহ নানাবিধ দিকে নারীর ভাগ্যের উন্নয়ন করার চেষ্টা করছি। আমরা আগমীতে প্রতিটি উপজেলায় কর্মজীবি নারীদের হোস্টেল করে দিব। যে হোটেলে থেকে নারী তার কর্মস্থলে স্বাচ্ছন্দে যোগ দিতে পারবেন। তাদের জীবন যাত্রাকে সহজ ও শান্তিময় করতে পারবে।

তিনি বলেন, এছাড়া দেশের সার্বিক উন্নয়নকে ত্বরান্বিত করতে আমরা ১০০টি অর্থনৈতিক অঞ্চল করছি। যেখানে দেশী-বিদেশি বিনিয়োগের মাধ্যমে দেশের অর্থনৈতিক ভীত্তি আরো শক্তিশালী হবে।

এ বছরে বেগম রোকেয়া পুরস্কার পেয়েছেন- সাবেক মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী জিন্নাতুনন্নেসা তালুকদার, প্রফেসর জোগরা আনিস, শীলা রায়, রমা চৌধুরী (মরনোত্তর) ও রোকেয়া বেগম। পদকপ্রাপ্তদের প্রত্যেককে ২৫ গ্রাম স্বর্ণের পদক, একটি সার্টিফিকেট ও দুই লাখ করে টাকা দেয়া হয়। পদকপ্রাপ্ত জিন্নাতুনন্নেসা তালুকদার নিজের অনুভুতি প্রকাশ করে বক্তব্য রাখেন। এ পদককে তিনি বাংলাদেশের নারী সমাজকে উৎসর্গ করেন।

বাংলার নারী জাগরণের অগ্রদূত বেগম রোকেয়ার জন্ম ও মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে প্রতি বছর এ দিন সারাদেশে সরকারিভাবে রোকেয়া দিবস পালন করা হয়।

দিবসটি উপলক্ষে প্রতি বছরের মতো এবারো রাষ্ট্রপতি মো: আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পৃথক বাণী দিয়েছেন। এ উপলক্ষে সরকারি ও বেসরকারি উদ্যোগে দেশব্যাপী বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, মহিলা ও শিশুবিষয়ক মন্ত্রণালয় প্রতিবছর বেগম রেকেয়া দিবসে পদক বিতরণ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে আসছে।

Tag :

জনপ্রিয় সংবাদ

দুমকিতে আন্তঃ উপজেলা ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠান।

পাঁচ নারীর হাতে রোকেয়া পদক তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী

আপডেট টাইম ০৫:১০:৪২ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ৯ ডিসেম্বর ২০১৮

মাতৃভূমির খবর ডেস্ক :  নারীর ক্ষমতায়নে বিভিন্নভাবে অবদান রাখায় এ বছর বেগম রোকেয়া পদক পেলেন পাঁচ নারী। আজ রবিবার সকালে বেগম রোকেয়া দিবস-২০১৮ উপলক্ষে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে এক অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই পদক বিতরণ করেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, মনে রাখতে হবে সংসার সুখের হয় রমনির গুণে। মেয়েরা বেশি আয়ুষ্কালের হয়। বেশি কষ্ট সহিষ্ণু হয়। উন্নয়নের মূল স্রোতধারায় তাদের অংশগ্রহণ বাড়াতে আমরা স্থানীয় সরকারের নারীর অংশগ্রহনের কোট ৩০ শতাংশ নিশ্চিত করেছি। মাতৃত্বকালীন ছুটিসহ নানাবিধ দিকে নারীর ভাগ্যের উন্নয়ন করার চেষ্টা করছি। আমরা আগমীতে প্রতিটি উপজেলায় কর্মজীবি নারীদের হোস্টেল করে দিব। যে হোটেলে থেকে নারী তার কর্মস্থলে স্বাচ্ছন্দে যোগ দিতে পারবেন। তাদের জীবন যাত্রাকে সহজ ও শান্তিময় করতে পারবে।

তিনি বলেন, এছাড়া দেশের সার্বিক উন্নয়নকে ত্বরান্বিত করতে আমরা ১০০টি অর্থনৈতিক অঞ্চল করছি। যেখানে দেশী-বিদেশি বিনিয়োগের মাধ্যমে দেশের অর্থনৈতিক ভীত্তি আরো শক্তিশালী হবে।

এ বছরে বেগম রোকেয়া পুরস্কার পেয়েছেন- সাবেক মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী জিন্নাতুনন্নেসা তালুকদার, প্রফেসর জোগরা আনিস, শীলা রায়, রমা চৌধুরী (মরনোত্তর) ও রোকেয়া বেগম। পদকপ্রাপ্তদের প্রত্যেককে ২৫ গ্রাম স্বর্ণের পদক, একটি সার্টিফিকেট ও দুই লাখ করে টাকা দেয়া হয়। পদকপ্রাপ্ত জিন্নাতুনন্নেসা তালুকদার নিজের অনুভুতি প্রকাশ করে বক্তব্য রাখেন। এ পদককে তিনি বাংলাদেশের নারী সমাজকে উৎসর্গ করেন।

বাংলার নারী জাগরণের অগ্রদূত বেগম রোকেয়ার জন্ম ও মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে প্রতি বছর এ দিন সারাদেশে সরকারিভাবে রোকেয়া দিবস পালন করা হয়।

দিবসটি উপলক্ষে প্রতি বছরের মতো এবারো রাষ্ট্রপতি মো: আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পৃথক বাণী দিয়েছেন। এ উপলক্ষে সরকারি ও বেসরকারি উদ্যোগে দেশব্যাপী বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, মহিলা ও শিশুবিষয়ক মন্ত্রণালয় প্রতিবছর বেগম রেকেয়া দিবসে পদক বিতরণ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে আসছে।