ঢাকা ১০:৩৭ অপরাহ্ন, রবিবার, ০৩ মার্চ ২০২৪, ২০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
কুমিল্লা সাংবাদিক ফোরাম ঢাকা’র সভাপতি সাজ্জাদ সাধারণ সম্পাদক মোশাররফ নির্বাচিত ভর্তুকি দিয়ে গ্যাস বিদ্যুৎ ও দ্রব্যমূল্য কমানোর দাবিতে সমাবেশ ও মিছিল “সফল সংগঠক হিসেবে ‘সাকসেস এ্যাওয়ার্ড-২০২৪’ পাচ্ছেন ব্যারিস্টার সাইফুর রহমান “ পুলিশ সার্ভিস এসোসিয়েশনের নব নির্বাচিত সভাপতি মনিরুল ইসলাম ,এবং সাধারণ সম্পাদক নারায়ণগঞ্জ জেলার পুলিশ সুপার গোলাম মোস্তফা রাসেল সাংবাদিক নাসির উদ্দীন বাবুলের ইন্তেকাল। দুমকিতে আন্তঃ উপজেলা ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠান। মুন্সীগঞ্জ পৌর নির্বাচনে আমিরুল ইসলাম এর নির্দেশে জগ মার্কার গনসংযোগ রাজধানীর বেইলি রোডে আগুন লাগার ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে মামলা করেন। “গুলশানে বিশ্বমানের জুয়েলারী শোরুম চালু করছে ডায়মন্ড ওয়ার্ল্ড” ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের চিটাগাং রোড সিমরাইল ট্রাক ও ইজিবাইকের সংঘর্ষে এক বৃদ্ধার মৃত্যু ও আহত ২

‘ছিনতাই’ করে আইনি ঝামেলায় বার্সেলোনা?

ইউরোপিয়ান ফুটবলের দলবদল অনেক দিন এমন কিছু দেখেনি। একদলের সঙ্গে চুক্তি সম্পন্ন, বিমানে চড়ে মেডিকেল সম্পন্ন করতে যাচ্ছেন খেলোয়াড়। সেই মুহূর্তে হঠাৎ নাটক, বিমানের নাক ঘুড়িয়ে অন্য কোনো ক্লাবের সঙ্গে চুক্তি করে ফেললেন সেই একই খেলোয়াড়! দলবদলের দুনিয়ায় একে ছিনতাই করা বলে। গত কয়েকটি দলবদলে এমন কিছু দেখা যায়নি। বার্সেলোনার সুবাদে এবার সেটার দেখা মিলল।

বোর্দোর সঙ্গে মৌখিক কথাবার্তা সব চূড়ান্ত ছিল এএস রোমার। এ নিয়ে দুই ক্লাব টুইটও করে ফেলেছিল। কিন্তু শেষ মুহূর্তে বার্সেলোনা এসে নিয়ে চলে গেল ম্যালকমকে। ২১ বছর বয়সী ব্রাজিলিয়ান উইঙ্গারকে এভাবে ‘ছিনতাই’ করায় রোমা ভয়ংকর খেপেছে। ইতালিয়ান সংবাদমাধ্যম তো প্রশ্নই তুলেছে, ‘ফেয়ার প্লে’ শব্দটা কী সেটা বার্সেলোনা জানে কি না!

রোমার স্পোর্টিং ডিরেক্টর মঞ্চি ওভাবে সরাসরি কিছু বলেননি। তবে বার্সেলোনার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া যায় কি না সেটা এরই মাঝে ভেবে দেখতে শুরু করেছেন, ‘ক্লাবের মধ্যে আমরা ব্যাপারটা নিয়ে আলোচনা করছি এবং দেখছি আইনি কোনো ব্যবস্থা নেওয়া যায় কি না। এটা সত্যি যে কাগজে-কলমে কোনো চুক্তি হয়নি। কিন্তু দুই পক্ষের মধ্যে অনেক কথা চালাচালি হয়েছে।খেলোয়াড়ের এজেন্ট ও ওই ক্লাবের সভাপতির সঙ্গে যেসব কথা হয়েছে যেগুলো বিবেচনায় আনা যায়।’

এমন ঘটনায় রোমার কোনো দোষ নেই, তবু সমর্থকদের কাছে ক্ষমা চেয়ে নিয়েছেন মঞ্চি, ‘যা হয়েছে তাতে আমি দুঃখিত। কিন্তু বোর্দোর সঙ্গে আমাদের পূর্ণাঙ্গ চুক্তি ছিল। এমনকি চুক্তি হয়ে যাওয়ার পরও অঙ্কটা বাড়ানো হয়েছিল। আমাদের সভাপতি পাল্লোত্তা সম্ভাব্য সেরা প্রস্তাব পাঠিয়েছেন কিন্তু যখন ব্যাপারটা নিলামে রূপ নিয়েছে তখনই আমরা সরে এসেছি। কেউ যদি রোমায় আসতে চায় ভালো, কিন্তু না চাইলে তাকেও রোমার দরকার নেই।’

এরপরই রোমার সমর্থকদের আশা দিয়েছেন মঞ্চি। বলছেন ম্যালকমের চেয়েও ভালো খেলোয়াড় এনে দেবেন, ‘আমি সমর্থকদের বলতে চাই আমরা কাজ করে যাব। এমন এক খেলোয়াড় খুঁজে বের করব যে রোমায় আসতে চায় এবং ম্যালকমের মতো কিংবা ওর চেয়েও ভালো!’

দলবদলের বাজারটা এবার ভালোই জমবে!

Tag :

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

কুমিল্লা সাংবাদিক ফোরাম ঢাকা’র সভাপতি সাজ্জাদ সাধারণ সম্পাদক মোশাররফ নির্বাচিত

‘ছিনতাই’ করে আইনি ঝামেলায় বার্সেলোনা?

আপডেট টাইম ০৭:৫১:৩৬ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৫ জুলাই ২০১৮

ইউরোপিয়ান ফুটবলের দলবদল অনেক দিন এমন কিছু দেখেনি। একদলের সঙ্গে চুক্তি সম্পন্ন, বিমানে চড়ে মেডিকেল সম্পন্ন করতে যাচ্ছেন খেলোয়াড়। সেই মুহূর্তে হঠাৎ নাটক, বিমানের নাক ঘুড়িয়ে অন্য কোনো ক্লাবের সঙ্গে চুক্তি করে ফেললেন সেই একই খেলোয়াড়! দলবদলের দুনিয়ায় একে ছিনতাই করা বলে। গত কয়েকটি দলবদলে এমন কিছু দেখা যায়নি। বার্সেলোনার সুবাদে এবার সেটার দেখা মিলল।

বোর্দোর সঙ্গে মৌখিক কথাবার্তা সব চূড়ান্ত ছিল এএস রোমার। এ নিয়ে দুই ক্লাব টুইটও করে ফেলেছিল। কিন্তু শেষ মুহূর্তে বার্সেলোনা এসে নিয়ে চলে গেল ম্যালকমকে। ২১ বছর বয়সী ব্রাজিলিয়ান উইঙ্গারকে এভাবে ‘ছিনতাই’ করায় রোমা ভয়ংকর খেপেছে। ইতালিয়ান সংবাদমাধ্যম তো প্রশ্নই তুলেছে, ‘ফেয়ার প্লে’ শব্দটা কী সেটা বার্সেলোনা জানে কি না!

রোমার স্পোর্টিং ডিরেক্টর মঞ্চি ওভাবে সরাসরি কিছু বলেননি। তবে বার্সেলোনার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া যায় কি না সেটা এরই মাঝে ভেবে দেখতে শুরু করেছেন, ‘ক্লাবের মধ্যে আমরা ব্যাপারটা নিয়ে আলোচনা করছি এবং দেখছি আইনি কোনো ব্যবস্থা নেওয়া যায় কি না। এটা সত্যি যে কাগজে-কলমে কোনো চুক্তি হয়নি। কিন্তু দুই পক্ষের মধ্যে অনেক কথা চালাচালি হয়েছে।খেলোয়াড়ের এজেন্ট ও ওই ক্লাবের সভাপতির সঙ্গে যেসব কথা হয়েছে যেগুলো বিবেচনায় আনা যায়।’

এমন ঘটনায় রোমার কোনো দোষ নেই, তবু সমর্থকদের কাছে ক্ষমা চেয়ে নিয়েছেন মঞ্চি, ‘যা হয়েছে তাতে আমি দুঃখিত। কিন্তু বোর্দোর সঙ্গে আমাদের পূর্ণাঙ্গ চুক্তি ছিল। এমনকি চুক্তি হয়ে যাওয়ার পরও অঙ্কটা বাড়ানো হয়েছিল। আমাদের সভাপতি পাল্লোত্তা সম্ভাব্য সেরা প্রস্তাব পাঠিয়েছেন কিন্তু যখন ব্যাপারটা নিলামে রূপ নিয়েছে তখনই আমরা সরে এসেছি। কেউ যদি রোমায় আসতে চায় ভালো, কিন্তু না চাইলে তাকেও রোমার দরকার নেই।’

এরপরই রোমার সমর্থকদের আশা দিয়েছেন মঞ্চি। বলছেন ম্যালকমের চেয়েও ভালো খেলোয়াড় এনে দেবেন, ‘আমি সমর্থকদের বলতে চাই আমরা কাজ করে যাব। এমন এক খেলোয়াড় খুঁজে বের করব যে রোমায় আসতে চায় এবং ম্যালকমের মতো কিংবা ওর চেয়েও ভালো!’

দলবদলের বাজারটা এবার ভালোই জমবে!