ঢাকা ০২:২৭ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ০৪ জুলাই ২০২২, ১৯ আষাঢ় ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
ইউএসটিসি ছাত্রদলের ৫ সদস্যের আহবায়ক কমিটির ৩ সদস্যের পদত্যাগ। পবিপ্রবিতে নিরাপদ খাদ্য ব্যবস্থাপনায় উৎপাদিত তেলাপিয়া ও পাঙ্গাস মাছের নিলাম অনুষ্ঠিত টাঙ্গাইলে এনটিভির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন লক্ষ্মীপুরে পুলিশের নায়েক থেকে সহকারী উপ পরিদর্শক হলেন ৬ জন পানি, খাবার এবং ঔষধ বিতরণ করেন KSA গোল্ডেন বয় সোসাইটি বোয়ালমারীতে গরুবাহী ট্রাকের চাপায় মা-মেয়ে নিহত কাঞ্চনায় স্কুল পরিচালনা নিয়ে মন্তব্য করায় হেনস্তার অভিযোগ মাত্র ৩০ সেকেন্ড টর্নেডোতে লন্ডভন্ড পটুয়াখালীর চরপাড়া। একটি মানবিক সাহায্যের জন্য আবেদন বাঁচতে চাই ক্যান্সারে আক্রান্ত মোহাম্মদ আরমান গজারিয়ায় ঢাকা চট্টগ্রাম মহাসড়কে ভবেরচর কলেজ রোডে সড়ক দূর্ঘটনা আহত ৫

স্বাস্থ্যরক্ষায় নিমগাছের ব্যবহার

স্বাস্থ্য  ডেস্ক :   নিমগাছের ঔষধি গুণের কোনো তুলনা নেই। প্রতিদিনকার স্বাস্থ্যরক্ষায় নিম গাছের বিভিন্ন অংশকে আপনি ব্যবহার করতে পারেন।

জেনে নিই শরীরের যত্নে আপনি নিমগাছকে কীভাবে ব্যবহার করতে পারেন-

চোখের ব্যথা দূর করতে : চোখে চুলকানি হলে নিমপাতা পানিতে ১০ মিনিট সিদ্ধ করে ঠাণ্ডা করে নিয়ে চোখে সেই পানির ঝাপটা দিলে আরামবোধ করবেন।

মাথাধরা সারাতে : মাথাব্যথা একটি কমন রোগ। তাই যদি নিম তেল নিয়মিত মাখেন মাথা ধরা কমে যাবে।

ক্যান্সার প্রতিরোধে : ক্যান্সার প্রতিকারে নিমপাতার ভূমিকা অতুলনীয়। বিশেষ করে নিম তেল, বাকল ও পাতার রস ব্যবহারে ক্যান্সার-টিউমার, স্কিন ক্যান্সার প্রভৃতি উপশম হয়।

হৃদরোগ প্রতিকারে : নিম পাতার রস খেলে হৃদরোগে উপকার পাওয়া যায়। নিম পাতার রস ব্লাড প্রেশার ও কোলেস্টেরল কমাতে সাহায্য করে। রক্ত পাতলা করে, হার্টবিট কমাতেও ভূমিকা রাখে।

কৃমি নিরাময় করতে : ৩-৪ গ্রাম নিমের ছাল গুঁড়ো করে সামান্য পরিমাণ সৈন্ধব লবণসহ সকালে খালি পেটে এক সপ্তাহ খেলে কৃমির উপদ্রব হতে রক্ষা পাওয়া যায়। নিয়মিত এক সপ্তাহ সেবন করতে হবে।

দাঁতের যত্ন : কচি নিম ডাল দিয়ে দাঁত মাজলে দাঁত ভালো থাকে। নিম পাউডার দিয়ে দাঁত মাজলে দাঁত ও মাড়ি থাকে সবল।

আলসার নিরাময়ে : নিম পাতা ও নিম বীজের রস খেলে আলসার ভালো হয়।

জন্ডিস রোগ প্রতিকারে : ২৫-৩০ ফোঁটা নিমপাতার রস একটু মধুর সঙ্গে মিশিয়ে সকালে খালি পেটে খেলে জন্ডিস রোগ থেকে মুক্তি পাওয়া যায়।

Tag :
জনপ্রিয় সংবাদ

ইউএসটিসি ছাত্রদলের ৫ সদস্যের আহবায়ক কমিটির ৩ সদস্যের পদত্যাগ।

স্বাস্থ্যরক্ষায় নিমগাছের ব্যবহার

আপডেট টাইম ০১:৫০:৪৪ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৮

স্বাস্থ্য  ডেস্ক :   নিমগাছের ঔষধি গুণের কোনো তুলনা নেই। প্রতিদিনকার স্বাস্থ্যরক্ষায় নিম গাছের বিভিন্ন অংশকে আপনি ব্যবহার করতে পারেন।

জেনে নিই শরীরের যত্নে আপনি নিমগাছকে কীভাবে ব্যবহার করতে পারেন-

চোখের ব্যথা দূর করতে : চোখে চুলকানি হলে নিমপাতা পানিতে ১০ মিনিট সিদ্ধ করে ঠাণ্ডা করে নিয়ে চোখে সেই পানির ঝাপটা দিলে আরামবোধ করবেন।

মাথাধরা সারাতে : মাথাব্যথা একটি কমন রোগ। তাই যদি নিম তেল নিয়মিত মাখেন মাথা ধরা কমে যাবে।

ক্যান্সার প্রতিরোধে : ক্যান্সার প্রতিকারে নিমপাতার ভূমিকা অতুলনীয়। বিশেষ করে নিম তেল, বাকল ও পাতার রস ব্যবহারে ক্যান্সার-টিউমার, স্কিন ক্যান্সার প্রভৃতি উপশম হয়।

হৃদরোগ প্রতিকারে : নিম পাতার রস খেলে হৃদরোগে উপকার পাওয়া যায়। নিম পাতার রস ব্লাড প্রেশার ও কোলেস্টেরল কমাতে সাহায্য করে। রক্ত পাতলা করে, হার্টবিট কমাতেও ভূমিকা রাখে।

কৃমি নিরাময় করতে : ৩-৪ গ্রাম নিমের ছাল গুঁড়ো করে সামান্য পরিমাণ সৈন্ধব লবণসহ সকালে খালি পেটে এক সপ্তাহ খেলে কৃমির উপদ্রব হতে রক্ষা পাওয়া যায়। নিয়মিত এক সপ্তাহ সেবন করতে হবে।

দাঁতের যত্ন : কচি নিম ডাল দিয়ে দাঁত মাজলে দাঁত ভালো থাকে। নিম পাউডার দিয়ে দাঁত মাজলে দাঁত ও মাড়ি থাকে সবল।

আলসার নিরাময়ে : নিম পাতা ও নিম বীজের রস খেলে আলসার ভালো হয়।

জন্ডিস রোগ প্রতিকারে : ২৫-৩০ ফোঁটা নিমপাতার রস একটু মধুর সঙ্গে মিশিয়ে সকালে খালি পেটে খেলে জন্ডিস রোগ থেকে মুক্তি পাওয়া যায়।