ঢাকা ০৩:২৮ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৩ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
মতলব উত্তরে আন্তর্জাতিক তথ্য অধিকার দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা ফরিদগঞ্জ উপজেলা যুবলীগের আয়োজনে উৎসবমুখর পরিবেশে প্রধানমন্ত্রীর ৭৬ তম জন্মদিন পালিত ফরিদগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আয়োজনে হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত লক্ষ্মীপুর জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক পদপ্রার্থী যুবলীগ নেতা ইউনুছ হাওলাদার রুপমের উদ্যোগে লক্ষ্মীপুরে দুস্থদের মাঝে খাবার বিতরণ দুমকি উপজেলা আওয়ামীলীগের উদ্যোগে প্রধানমন্ত্রীর ৭৬ তম জন্মদিন পালিত। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্মদিনে লক্ষ্মীপুর পৌরসভার কেক কাটা অনুষ্ঠিত সোহাগ রনির উদ্যোগে প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনে দোয়া ও খাবার বিতরণ সোনারগাঁওয়ে কেক কেটে প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন পালন যুবনেতা মো. আশরাফুল আলম এর উদ্যোগে লক্ষ্মীপুরে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প অনুষ্ঠিত

স্ট্রিট ল্যাম্পের বদলে কৃত্রিম ‘চাঁদ’ তৈরি করছে চীন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :  নিজস্ব চাঁদ তৈরির পরিকল্পনা করছে চীন। ২০২০ সালের মধ্যে এই চাঁদ আকাশে পাঠানো হবে। যার আলোয় আলোকিত হবে দেশটির বিভিন্ন শহর।

চীনের দক্ষিণ-পশ্চিমের সিচুয়ান প্রদেশে অবস্থিত চেংডু শহরের কর্তৃপক্ষ জানায়, তারা ২০২০ সাল নাগাদ একটি কৃত্রিম উপগ্রহ উৎক্ষেপণের পরিকল্পনা করেছে। এই উপগ্রহ রাত্রে শহরটিতে আলো ফেলবে এবং এতই উজ্জ্বল হবে যে এ শহরে আর স্ট্রিট ল্যাম্প দরকার হবে না।

ওই উপগ্রহের শরীরে বিশেষ এক ধরনের প্রলেপ দেওয়া থাকবে যাতে তা সূর্যের আলো প্রতিফলন করে চেংডু শহরে ফেলতে পারে।

মূলত রাস্তায় ব্যবহৃত লাইটের বিকল্প হিসেবে কৃত্রিম চাঁদ ব্যবহার করা হবে। এছাড়া বিদ্যুতের খরচ কমিয়ে আনতেও কার্যকরী ভূমিকা পালন করবে এটি। স্থানীয় বেশ কয়েকটি গণমাধ্যমের বরাত দিয়ে এসব তথ্য জানিয়েছে ভারতীয় গণমাধ্যম ‘গেজেটস নাউ’।

‘চায়না ডেইলি’ জানায়, সিচুয়ান প্রদেশের দক্ষিণ-পশ্চিমে চেংদু শহরে ‘ইলিউমিনেসন স্যাটেলাইট’ তৈরি হচ্ছে। এটা মূলত কৃত্রিম চাঁদ। এই চাঁদ সত্যিকারের চাঁদের চেয়ে ৮ গুণ বেশি আলো দেবে।

মানুষের তৈরি প্রথম চাঁদটি সিচুয়ানের জিচাং স্যাটেলাইট লঞ্চ সেন্টার থেকে আকাশে পাঠানো হবে। পদক্ষেপটি সফল হলে ২০২২ সালের মধ্যে আরও তিনটি কৃত্রিম চাঁদ আকাশে যাবে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।কৃত্রিম চাঁদ প্রকল্পের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা চানফেং বলেন, প্রথম চাঁদটি পরীক্ষামূলকভাবে পাঠানো হবে। এতে সফল হলে বাণিজ্যিকভাবে ব্যবহারের জন্য আরও তিনটি কৃত্রিম চাঁদ পাঠানো হবে ২০২২ সালের মধ্যে।

কৃত্রিম চাঁদের মাধ্যমে চীনের ৫০ বর্গকিলোমিটার এলাকা আলোকিত হলে বছরে ১৭ কোটি ডলার সাশ্রয় হবে। এছাড়া দুর্যোগকালীন সময়ে উদ্ধার কার্যক্রম চালাতে কার্যকরী ভূমিকা পালন করবে এটি।

Tag :
জনপ্রিয় সংবাদ

মতলব উত্তরে আন্তর্জাতিক তথ্য অধিকার দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা

স্ট্রিট ল্যাম্পের বদলে কৃত্রিম ‘চাঁদ’ তৈরি করছে চীন

আপডেট টাইম ০৩:২১:০৩ অপরাহ্ন, রবিবার, ২১ অক্টোবর ২০১৮

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :  নিজস্ব চাঁদ তৈরির পরিকল্পনা করছে চীন। ২০২০ সালের মধ্যে এই চাঁদ আকাশে পাঠানো হবে। যার আলোয় আলোকিত হবে দেশটির বিভিন্ন শহর।

চীনের দক্ষিণ-পশ্চিমের সিচুয়ান প্রদেশে অবস্থিত চেংডু শহরের কর্তৃপক্ষ জানায়, তারা ২০২০ সাল নাগাদ একটি কৃত্রিম উপগ্রহ উৎক্ষেপণের পরিকল্পনা করেছে। এই উপগ্রহ রাত্রে শহরটিতে আলো ফেলবে এবং এতই উজ্জ্বল হবে যে এ শহরে আর স্ট্রিট ল্যাম্প দরকার হবে না।

ওই উপগ্রহের শরীরে বিশেষ এক ধরনের প্রলেপ দেওয়া থাকবে যাতে তা সূর্যের আলো প্রতিফলন করে চেংডু শহরে ফেলতে পারে।

মূলত রাস্তায় ব্যবহৃত লাইটের বিকল্প হিসেবে কৃত্রিম চাঁদ ব্যবহার করা হবে। এছাড়া বিদ্যুতের খরচ কমিয়ে আনতেও কার্যকরী ভূমিকা পালন করবে এটি। স্থানীয় বেশ কয়েকটি গণমাধ্যমের বরাত দিয়ে এসব তথ্য জানিয়েছে ভারতীয় গণমাধ্যম ‘গেজেটস নাউ’।

‘চায়না ডেইলি’ জানায়, সিচুয়ান প্রদেশের দক্ষিণ-পশ্চিমে চেংদু শহরে ‘ইলিউমিনেসন স্যাটেলাইট’ তৈরি হচ্ছে। এটা মূলত কৃত্রিম চাঁদ। এই চাঁদ সত্যিকারের চাঁদের চেয়ে ৮ গুণ বেশি আলো দেবে।

মানুষের তৈরি প্রথম চাঁদটি সিচুয়ানের জিচাং স্যাটেলাইট লঞ্চ সেন্টার থেকে আকাশে পাঠানো হবে। পদক্ষেপটি সফল হলে ২০২২ সালের মধ্যে আরও তিনটি কৃত্রিম চাঁদ আকাশে যাবে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।কৃত্রিম চাঁদ প্রকল্পের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা চানফেং বলেন, প্রথম চাঁদটি পরীক্ষামূলকভাবে পাঠানো হবে। এতে সফল হলে বাণিজ্যিকভাবে ব্যবহারের জন্য আরও তিনটি কৃত্রিম চাঁদ পাঠানো হবে ২০২২ সালের মধ্যে।

কৃত্রিম চাঁদের মাধ্যমে চীনের ৫০ বর্গকিলোমিটার এলাকা আলোকিত হলে বছরে ১৭ কোটি ডলার সাশ্রয় হবে। এছাড়া দুর্যোগকালীন সময়ে উদ্ধার কার্যক্রম চালাতে কার্যকরী ভূমিকা পালন করবে এটি।