শনিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২০, ০১:৩১ অপরাহ্ন

যে ১৪ শর্তে সিলেটে জনসভার অনুমতি পেল ঐক্যফ্রন্ট

ফাইল ছবি: জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট

মাতৃভূমির খবর ডেস্ক:   অাগামী ২৪ অক্টোবর সিলেটে সমাবেশ করার অনুমতি পেয়েছে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। আজ রোববার বিকেলে সিলেট জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আলী আহমদ জানান, মহানগর পুলিশের পক্ষ থেকে ১৪টি শর্তে সিলেটের রেজিস্ট্রারি মাঠে চার ঘণ্টার জন্য সমাবেশের অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

তিনি জানান, রোববারবিকেলে মহানগর পুলিশ কার্যালয়ে যোগাযোগ করলে এক পুলিশ কর্মকর্তা তাকে অনুমতির বিষয়টা নিশ্চিত করেন।

মহানগর পুলিশ কমিশনার মো. গোলাম কিবরিয়াও সমাবেশের অনুমতি প্রদানের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

১৪টি শর্তের মধ্যে রয়েছে—

১.  জনসাধারণের চলাচলের রাস্তায় প্রতিবন্ধকতার সৃষ্টি করা যাবে না।
২.  রাষ্ট্রবিরোধী কোনো ধরনের বক্তব্য ও বিবৃতি দেওয়া যাবে না।
৩. সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি নষ্ট করে কিংবা ধর্মীয় অনুভূতি বা মূল্যবোধের উপর আঘাত হানে এমন বক্তব্য ও বিবৃতি দেয়া যাবে না। এমন কোনো  পোস্টার, ফেস্টুন প্রদর্শন করা যাবে না।
৪. অনুষ্ঠানস্থলে পর্যাপ্ত সংখ্যক নিজস্ব পুরুষ ও মহিলা স্বেচ্ছাসেবক নিয়োগ করতে হবে।
৫. নির্ধারিত স্থানে এবং নির্ধারিত সময় বেলা ২টা থেকে ৫টার মধ্যে অনুষ্ঠান শেষ করতে হবে।
৬. আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি ঘটিয়ে জানমালের ক্ষয়ক্ষতির আশঙ্কা হতে পারে এমন বক্তব্য দেওয়া যাবে না। এরূপ বক্তব্য সম্বলিত কোনো ব্যানার ফেস্টুন প্রদর্শন করা যাবে না।
৭. মাইক ও যন্ত্র ব্যবহারের কারণে আশপাশের লোকজনের কোনো অসুবিধা না হয় সেটা নিশ্চিত করতে হবে।
৮. ব্যাগ, সিগারেট, দিয়াশলাই ও লাইটার নিয়ে অনুষ্ঠানস্থলে নিয়ে প্রবেশ করা যাবে না।
৯.  কোনো ধরনের লাঠিসোটা, ধারালো অস্ত্র (দা, চাকু, ছুড়ি ইত্যাদি) কিংবা লাঠি সংযুক্ত ব্যানার ফেস্টুন ব্যবহার করা যাবে না।
১০.  কোনো ধরনের বৈধ অস্ত্র সঙ্গে আনা এবং বহন করা যাবে না।
১১. সুরমা পয়েন্ট থেকে তালতলা পর্যন্ত কোনো গাড়ি পার্কিং করা যাবে না।
১২. অনুষ্ঠানস্থলে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি ঘটলে আয়োজনকারী কর্তৃপক্ষ দায়ী থাকবে।
১৩. উল্লেখযোগ্য শর্তাবলী একটি বা একাধিক লঙ্ঘন/অমান্য করা হলে সংশ্লিষ্টদের আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
১৪. কর্তৃপক্ষ কোনো কারণ দর্শানো ব্যতিরেকে অনুষ্ঠানের অনুমতি বাতিলের ক্ষমতা সংরক্ষণ করে।

এর আগে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট সমাবেশের অনুমতি চেয়ে আবেদন করলে তাদের দুই দফা ফিরিয়ে দেয় পুলিশ। প্রথমে ২৩ অক্টোবর সিলেট রেজিস্টারি মাঠে সমাবেশ করার অনুমতি চায় ঐক্যফ্রন্ট। ওইদিন অনুমতি না পেয়ে পরদিন একইস্থানে সমাবেশ করার জন্য অনুমতি চাওয়া হয়। সে আবেদনও ঝুলিয়ে রাখে পুলিশ।

এ অবস্থায় আজ রোববার দুপুরে হাইকোর্টে রিট করেন বিএনপি নেতা আলী আহমদ। আগামীকাল সোমবার এই রিটের শুনানির তারিখ ধার্য করেছিল আদালত। তবে তার আগেই পুলিশ সমাবেশের অনুমতি প্রদানের কথা জানায়।

যদিও আজ সকালেই আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছিলেন, ‘জাতীয় ঐক্যফ্রন্টকে সিলেটে সমাবেশের অনুমতি দেওয়া হয়েছিল। অনুমতি পেয়েও এ নিয়ে তারা নাটক করেছে।’

ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বাধীন সরকারবিরোধী এই জোট ২৪ অক্টোবরের সিলেট সফরের মধ্য দিয়েই তাদের আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম শুরু করবে।

নিউজটি শেয়ার করুন





সর্বস্বত্ব © ২০১৯ মাতৃভূমির খবর কর্তৃক সংরক্ষিত

Design & Developed BY ThemesBazar