ঢাকা ০৫:৩৭ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২৩, ১৪ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
সারা দেশব্যাপী কেন্দ্রীয় ফারিয়ার ৭ম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালনে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন রেকর্ড গড়ল শাহরুখের ‘পাঠান’ বিদেশেও অপ্রতিরোধ্য সীমান্তে হত্যা এবং মাদকদ্রব্যসহ সকল চোরাচালান বন্ধের দাবিতে সমাবেশ ও কাঁটাতার মিছিল মসজিদে নামাজের মধ্যদিয়ে মুসল্লিদের মাঝে হৃদ্যতা বাড়ে : আলহাজ্ব আ জ ম নাছির উদ্দিন শখ থেকে উদ্যোক্তা, কোয়েল পাখির ডিম বিক্রি করে মাসে আয় আড়াই লাখ। নড়াইল-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য মুফতি শহিদুল ইসলামের ইন্তেকাল বাউফলে সরকারি চাল বাজারজাত করার সময় বাবা-ছেলে আটক। থানায় আগত সেবা প্রত্যাশীদের যথাযথ আইনি সহায়তা প্রদান করুন: আইজিপি জননেত্রী শেখ হাসিনার আমলে বাংলাদেশের মানুষ শান্তিতে বসবাস করতে পারেঃ” আব্দুস সালাম মূর্শেদী এমপি” কলাপাড়ার মহিপুরে ৫০ মণ জাটকাসহ ট্রলার জব্দ।

ভোটের দিন তীব্র শীত পড়ার আশঙ্কা

মাতৃভূমির খবর ডেস্কঃ   রাজশাহীতে দেশের সর্বনিম্ন ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে আজ শুক্রবার। এর আগে বৃহস্পতিবার রাজশাহীতে তাপমাত্রা ছিল ৬ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

রাজশাহী আবহাওয়া অফিসের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুল মান্নান জানিয়েছেন, আরও দু’-তিনদিন রাজশাহীসহ সারাদেশে রাতের তাপমাত্রা ১ থেকে ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত কমবে। ফলে নতুন করে উত্তর ও মধ্যাঞ্চলের আরও কিছু এলাকা শৈতপ্রবাহের কবলে পড়তে পারে।

তাপমাত্রা ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে নেমে গেলে তাকে তীব্র শৈতপ্রবাহ বলা হয়। যতই দিন যাচ্ছে তাপমাত্রার পারদ কেবলই নিচের দিকে নামছে। ভোরে ঘন কুয়াশা আর দিনভর ঠাণ্ডা বাতাসে কাবু হয়ে পড়েছেন ছিন্নমূল মানুষগুলো। রাতে তা আরও অসহনীয় হয়ে উঠছে। গাছপালা বেশি থাকায় শহর-নগরের তুলনায় গ্রামাঞ্চলে শীতের কাঁপুনি বেশি। গ্রামাঞ্চলের অনেক মানুষের জন্যই তা বয়ে এনেছে বাড়তি কষ্ট ও দুর্ভোগ। আজ শুক্রবার সারাদেশের মধ্যে রাজশাহীতে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। ঢাকায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ১৪ দশমিক ৪, চট্টগ্রামে ১৩ দশমিক ৭, সিলেটে ১৩ দশমিক ৫, খুলনায় ৯ দশমিক ৮, বরিশালে ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস, রংপুরে ৮ দশমিক ৭, ময়মনসিংহে ১০ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

গত ২৫ ডিসেম্বর থেকে ১০ ডিগ্রির নিচে তাপমাত্রা অব্যাহত রয়েছে রাজশাহীতে। এই জেলায় শৈতপ্রবাহ আরো কয়েকদিন থাকবে বলেও জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদফতর।

এতে রোববার (৩০ ডিসেম্বর) ভোটের দিন তীব্র শীত পড়ার আশঙ্কা রয়েছে। তবে দু’-তিনদিন পর তাপমাত্রা বাড়তে থাকবে। শীতের প্রকোপ তখন কিছুটা কমে আসবে। তবে এর আগে সকাল-সন্ধ্যা ও রাতে ঘন কুয়াশা থাকবে।

Tag :
জনপ্রিয় সংবাদ

সারা দেশব্যাপী কেন্দ্রীয় ফারিয়ার ৭ম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালনে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন

ভোটের দিন তীব্র শীত পড়ার আশঙ্কা

আপডেট টাইম ০১:৩৯:৪৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২৮ ডিসেম্বর ২০১৮

মাতৃভূমির খবর ডেস্কঃ   রাজশাহীতে দেশের সর্বনিম্ন ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে আজ শুক্রবার। এর আগে বৃহস্পতিবার রাজশাহীতে তাপমাত্রা ছিল ৬ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

রাজশাহী আবহাওয়া অফিসের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুল মান্নান জানিয়েছেন, আরও দু’-তিনদিন রাজশাহীসহ সারাদেশে রাতের তাপমাত্রা ১ থেকে ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত কমবে। ফলে নতুন করে উত্তর ও মধ্যাঞ্চলের আরও কিছু এলাকা শৈতপ্রবাহের কবলে পড়তে পারে।

তাপমাত্রা ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে নেমে গেলে তাকে তীব্র শৈতপ্রবাহ বলা হয়। যতই দিন যাচ্ছে তাপমাত্রার পারদ কেবলই নিচের দিকে নামছে। ভোরে ঘন কুয়াশা আর দিনভর ঠাণ্ডা বাতাসে কাবু হয়ে পড়েছেন ছিন্নমূল মানুষগুলো। রাতে তা আরও অসহনীয় হয়ে উঠছে। গাছপালা বেশি থাকায় শহর-নগরের তুলনায় গ্রামাঞ্চলে শীতের কাঁপুনি বেশি। গ্রামাঞ্চলের অনেক মানুষের জন্যই তা বয়ে এনেছে বাড়তি কষ্ট ও দুর্ভোগ। আজ শুক্রবার সারাদেশের মধ্যে রাজশাহীতে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। ঢাকায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ১৪ দশমিক ৪, চট্টগ্রামে ১৩ দশমিক ৭, সিলেটে ১৩ দশমিক ৫, খুলনায় ৯ দশমিক ৮, বরিশালে ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস, রংপুরে ৮ দশমিক ৭, ময়মনসিংহে ১০ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

গত ২৫ ডিসেম্বর থেকে ১০ ডিগ্রির নিচে তাপমাত্রা অব্যাহত রয়েছে রাজশাহীতে। এই জেলায় শৈতপ্রবাহ আরো কয়েকদিন থাকবে বলেও জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদফতর।

এতে রোববার (৩০ ডিসেম্বর) ভোটের দিন তীব্র শীত পড়ার আশঙ্কা রয়েছে। তবে দু’-তিনদিন পর তাপমাত্রা বাড়তে থাকবে। শীতের প্রকোপ তখন কিছুটা কমে আসবে। তবে এর আগে সকাল-সন্ধ্যা ও রাতে ঘন কুয়াশা থাকবে।