বুধবার, ২৩ জুন ২০২১, ০৭:৪২ পূর্বাহ্ন

ফারাজের উদ্যোগ,বাংলাদেশের সাড়া ; ঔষধ যাবে ফিলিস্তিনে

ফারাজের উদ্যোগ,বাংলাদেশের সাড়া ; ঔষধ যাবে ফিলিস্তিনে

রাহাত মামুন
চট্টগ্রাম সংবাদদাতা

ইসরাইলি বর্বর সামরিক বাহিনীর নির্মম নির্যাতনের শিকার নিরীহ ফিলিস্তিনবাসীর সাহায্যার্থে ওষুধ সহ প্রয়োজনীয় সামগ্রী নিয়ে পাশে দাঁড়িয়েছে বাংলাদেশের সাধারণ মানুষ।

বাংলাদেশে নিযুক্ত ফিলিস্তিন রাষ্ট্রদূত ও ফিলিস্তিন দূতাবাসের কর্মকর্তাদের সঙ্গে আলাপ করে কয়েকদিন পূর্বে ফিলিস্তিনের জনগণের সাহায্যার্থে ওষুধসহ প্রয়োজনীয় সামগ্রী সংগ্রহ করার উদ্যোগ নেন তরুণ রাজনীতিবিদ এবিএম ফজলে করিম চৌধুরীর বড় সন্তান ফারাজ করিম চৌধুরী। তার এই উদ্যোগ ব্যাপক সাড়া ফেলে। ফলশ্রুতিতে দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে অসংখ্য মানুষ ওষুধ পাঠাতে থাকে।

একপর্যায়ে ওষুধের পরিমাণ বেড়ে যাওয়ায় তিনি বলেন, তার কাছে না পাঠিয়ে সরাসরি ফিলিস্তিন দূতাবাসে পাঠানোর জন্য অনুরোধ জানান।

বৃহস্পতিবার (২০ মে) রাজধানী ঢাকার বারিধারাস্থ ফিলিস্তিন দূতাবাসে সংগৃহীত প্রায় ৫০ লাখ টাকার ওষুধ ফিলিস্তিনের রাষ্ট্রদূত ইউসুফ এস ওয়াই রমাদানের কাছে হস্তান্তর করেন ফারাজ করিম চৌধুরী।

এ প্রসঙ্গে ফারাজ করিম চৌধুরী বলেন, এই মানবিক কার্যক্রমে ওষুধ কোম্পানির মধ্যে অপসোনিন ফার্মা ও একমি ফার্মাসিউটিক্যালস এগিয়ে এসেছে। তাদেরকে বিশেষভাবে কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি। আমার অনেক বন্ধুও সাহায্য করেছেন।

ফারাজের এই মানবিক কার্যক্রমে সম্পৃক্ত আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা ও সাবেক মন্ত্রী আমির হোসেন আমুর কন্যা সুমাইয়া হোসেন বলেন, শুধুমাত্র ধর্মীয় দৃষ্টিকোণ থেকে নয়, মানুষ হিসেবে নির্যাতিত ফিলিস্তিনবাসীর পাশে দাঁড়ানো আমাদের দায়িত্ব। আমরা আমাদের সাধ্যমতো চেষ্টা করেছি তাদের পাশে দাঁড়াতে।
উল্লেখ্য ফারাজ করিম চৌধুরীর অনুরোধে ফিলিস্তিন দূতাবাস বিকাশ/নগদ/রকেট একাউন্ট খুলেছে। যে কেউ সরাসরি এসব নাম্বারে সহযোগিতা পাঠাতে পারবেন।

বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ থেকেও ফিলিস্তিনের নিপীড়িত মানুষের জন্য সহযোগিতার পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে। বাংলাদেশের জনগণ সরকারের এই উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়েছে।

 

নিউজটি শেয়ার করুন





সর্বস্বত্ব © ২০১৯ মাতৃভূমির খবর কর্তৃক সংরক্ষিত

Design & Developed BY ThemesBazar