সোমবার, ১৮ অক্টোবর ২০২১, ০৪:০৩ পূর্বাহ্ন

আজকের সেনাবাহিনী ১০ বছর আগের চেয়ে সম্পূর্ণ আলাদা: রাষ্ট্রপতি

ফাইল ছবি

মাতৃভূমির খবর ডেস্ক :    সেনাবাহিনীর সক্ষমতা বৃদ্ধি পেয়েছে উল্লেখ করে রাষ্ট্রপতি মো.আবদুল হামিদ বলেছেন, বাংলাদেশ সেনাবাহিনী এখন অনেক অধুনিক ও শক্তিশালী। আজ শনিবার চট্টগ্রামের ভাটিয়ারিতে বাংলাদেশ মিলিটারি একাডেমির (বিএমএ) প্যারেড গ্রাউন্ডে রাষ্ট্রপতি কুচকাওয়াজে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। বিএমএ’র ৭৬ তম দীর্ঘমেয়াদি কোর্সের অফিসার ক্যাডেটদের কমিশন প্রাপ্তি উপলক্ষে এই কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

রাষ্ট্রপতি বলেন, গত ১০ বছরে সেনাবাহিনীর অবকাঠামোগত পরিবর্তনের পাশাপাশি সক্ষমতা বহুলাংশে বেড়েছে। ফোর্সেস গোল-২০৩০ এর অংশ হিসেবে সেনাবাহিনীর আধুনিকায়নসহ শক্তিশালী প্রতিরোধ ব্যবস্থা গড়ে তোলার লক্ষ্যে প্রয়োজনীয় সমরাস্ত্র ও সরঞ্জাম সংগ্রহ করা হয়েছে। আজকের বাংলাদেশ সেনাবাহিনী অবকাঠামোগত, কৌশলগত এবং প্রযুক্তিগত দিক থেকে এক দশক আগের সেনাবাহিনীর চেয়ে সম্পূর্ণ আলাদা। আধুনিক প্রশিক্ষণ ও সরঞ্জামাদি সমন্বয়ে অনেক বেশি উন্নত, দক্ষ ও চৌকস।

বাংলাদেশ সেনাবাহিনী বিশ্বে নিজেদের অবস্থান আরও সুদৃঢ় করবে বলে আশা করছেন রাষ্ট্রপতি।

‘রাষ্ট্রপতি কুচকাওয়াজের’ মাধ্যমে বাংলাদেশ মিলিটারি একাডেমির ৭৬তম দীর্ঘমেয়াদি কোর্সের ২৫৪ জন বাংলাদেশি, দুইজন সৌদি এবং একজন শ্রীলঙ্কান ক্যাডেটসহ মোট ২৫৭ জন ক্যাডেট কমিশন লাভ করেছেন। বাংলাদেশি ক্যাডেটদের মধ্যে ২১৭ জন পুরুষ ও ৩৭ জন নারী।

এদের মধ্যে ব্যাটালিয়ন সিনিয়র আন্ডার অফিসার এ কে এম ইনজামামুল হক সেরা চৌকস ক্যাডেট বিবেচিত হয়ে ‘সোর্ড অব অনার’ পেয়েছেন। কোম্পানি সিনিয়র আন্ডার অফিসার ইবনে ইজাজ হাসান সামরিক বিষয়ে শ্রেষ্ঠত্বের জন্য ‘সেনাবাহিনী প্রধান স্বর্ণপদক’ পেয়েছেন।

কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল আজিজ আহমেদ, নৌবাহিনী প্রধান এডমিরাল নিজামউদ্দিন আহমেদ ও বিমানবাহিনী প্রধান এয়ার চিফ মার্শাল মাসিহুজ্জামান সেরনিয়াবাতসহ ঊর্ধ্বতন সামরিক কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন





সর্বস্বত্ব © ২০১৯ মাতৃভূমির খবর কর্তৃক সংরক্ষিত

Design & Developed BY ThemesBazar