শনিবার, ০৪ জুলাই ২০২০, ০২:৪৮ অপরাহ্ন

লক্ষ্মীপুরে ব্যাপক ফলের সমাহার দেখা যায় সমাজসেবক রেজাউল হক রানা,র মেঘনা বিলাসে

লক্ষ্মীপুর জেলা প্রতিনিধি : আমজাদ হোসেন । লক্ষ্মীপুর পৌর ২নং ওয়ার্ডের মেঘনা রোডে অবস্থিত বিশিষ্ট সমাজসেবক শিক্ষানুরাগী, সম্ভ্রান্ত পরিবারের সন্তান  রেজাউল হক রানা,র  ৩ একর জমিতে শখের বসে ফল গাছ রোপন করেন, আর সে গাছ গুলো এখন জৈষ্ঠ্যমাসে ফলন দিতে ব্যাস্ত সময় পার করছে । ফল গুলোর মধ্যে আম, কাঁঠাল, লিচু, মন্ডল, ডেউয়া, লেবু, কলা, আনারস, নারিকেল, সুপারি, আমলকি, আমড়া, কামরাঙা,  গাব, কমলা, ডালিম, আতা, জাম, জলপাই, পেয়ারা, জাম্বুরা সহ আরো অনেক ফল গাছে দেখা যায় । দেখে যেন মনে হয় রানা,র মেঘনা বিলাস বাড়িতে  জৈষ্ঠ্য মাসের ফলের মেলা বসেছে । গাছে গাছে জুলসে জৈষ্ঠ্য মাসের ফল । ফলের সমাহার, ফুলের সমাহার, দেখে কার না মন কাড়ে  । সাধারণত আমাদের বাংলাদেশে জৈষ্ঠ্যমাস কে মধুমাস বলা হয়ে থাকে , এ মধুমাসে রানা,র মেঘনা বিলাস বাগান বাড়িতে সুস্বাদু ফরমালিন মুক্ত ফলের মেলার সমাহার সত্যি প্রশংসার দাবীদার । রেজাউল হক রানা ছোটকাল থেকে বৃক্ষ প্রেমিক, নিজের আপনজনের মতো বৃক্ষকে খুব যত্ন করতেন, তাই তার এ সাফল্য ৷ মধুমাসে একই বাড়িতে এতো রকমের ফল দেখে সত্যি ভালো লাগার অদ্ভুত বিষয় । বর্তমান যে সময়, এ সময়টাতে সবাই ফরমালিন মুক্ত ফল চায়, আর এ ফরমালিন মুক্ত ফল দেখা যায় শিক্ষানুরাগী রেজাউল হক রানা,র মেঘনা রোডের মেঘনা বিলাস এর বাগান বাড়িতে ৷ ব্যাপক ফলের সমাহারের বিষয়ে মেঘনা বিলাস এর মালিক রেজাউল হক রানা,র কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, বাংলাদেশ কৃষি নির্ভর দেশ, এ দেশে যতো বৃক্ষ রোপণ করা যাবে ততই এগিয়ে যাবে সামনের দিকে । বৃক্ষ মানুষকে ফুল দিয়ে, ফল দিয়ে, শাখা দিয়ে মানুষের উপকার করে ৷ পরের সেবা করেই বৃক্ষের জীবন ধন্য । বৃক্ষের দিকে তাকালে জীবনের মানে বুঝা যায় । মহামারী করোনা ভাইরাসে সবাই বেশী বেশী ভিটামিন ফরমালিন মুক্ত ফলমূল খাবেন, দূরত্ব বজায় রেখে সবাই চলাফেরা করবেন । সুস্থ থাকতে সবাই ঘরে থাকুন, বিনা প্রয়োজনে কেউ ঘর থেকে বের হবেন না ।  আমাদের সবার উচিৎ হবে করোনার এ সময়টাকে নিজকে বৃক্ষ রোপণের মাধ্যমে বিলিয়ে দেওয়া । সবাই বেশী করে বৃক্ষ রোপণ করবো, এবং, বৃক্ষের মাধ্যমে নিজেদের সপ্নগুলোকে বাস্তবায়ন করবো । আমি সফল হয়েছি, আপনারাও হবেন । তাই সবার কাছে আমার অনুরোধ, এক দিকে বর্ষাকাল, আরেক দিকে করোনা ।  এখুনি সবার সময়, গাছ লাগান, পরিবেশ বাঁচান ।

নিউজটি শেয়ার করুন





সর্বস্বত্ব © ২০১৯ মাতৃভূমির খবর কর্তৃক সংরক্ষিত
Design & Developed BY ThemesBazar