সোমবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৪:৪৮ পূর্বাহ্ন

রাজধানীর তেজগাঁও, মোহাম্মদপুর থানা এলাকায় পৃথক পৃথক মাদক বিরোধী অভিযানে দুইজন নারী মাদক ব্যবসায়ীসহ তিনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-২। ১১৫০ পিস উদ্ধার।

প্রেস রিলিজ

১। বাংলাদেশ আমার অহংকার এই শ্লোগান নিয়ে র‌্যাব প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকেই মাদক দ্রব্য উদ্ধারে অগ্রণী ভূমিকা পালন করে আসছে। বর্তমান প্রেক্ষাপটে তরুণ সমাজ ধ্বংসের সবচেয়ে আলোচিত এবং অন্যতম মাধ্যম হিসেবে মাদকদ্রব্যকে ব্যবহার করা হচ্ছে। সমাজে মাদকের ভয়াল থাবার বিস্তার রোধকল্পে মাদক বিরোধী অভিযানে র‌্যাব সর্বদা সক্রিয় ভূমিকা পালন করে আসছে। র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব) প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে সবসময়ই মাদক উদ্ধারের ক্ষেত্রে অত্যন্ত অগ্রণী ভূমিকা পালন করে আসছে এবং এই পর্যন্ত বিপুল পরিমাণ দেশী/বিদেশী অবৈধ মাদক উদ্ধার করে সাধারণ জনগণের আস্থা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে।

২। চলমান মাদক বিরোধী অভিযানের ধারাবাহিকতায় গত ০৪/০৮/২০২০খ্রিঃ তারিখ সময় ১৩.৫৫ ঘটিকায় র‌্যাব-২ এর আভিযানিক দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারে যে, রাজধানীর তেজগাঁও থানাধীন ১৫০, পূর্ব তেজতুরি বাজারস্থ জাকিয়া টাওয়ার(কাওরান বাজার) এর সামনে পাকা রাস্তার উপর কয়েকজন নারী মাদক ব্যবসায়ী অবৈধ মাদকদ্রব্য নিজ হেফাজতে রেখে বিক্রয়ের উদ্দেশ্য অবস্থান করিতেছে। উক্ত সংবাদের সত্যতা যাচাইয়ের নিমিত্তে র‌্যাব-২ এর আভিযানিক দল ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে আসামীরা দৌড়ে পালানোর চেষ্টা কালে ১। মোসাঃ রত্মা বেগম (২৭), ২। ফিরোজা(৩৪), আসামীদেরকে গ্রেফতার করে। আটককৃত আসামীদেরকে ইয়াবা (মাদকের) বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদে প্রথমে অস্বীকার করে। পরবর্তীতে মহিলা র‌্যাব সদস্য ধারা আসামীদের তল্লাশি করলে বিশেষ কায়দায় লুকিয়ে রাখা ২৫০(দুইশত প শ) পিস ইয়াবা ট্যাবলেট (মাদক) উদ্ধার করা হয়। গ্রেফতারকৃত আসামীদের জিজ্ঞাসাবাদে জানায়, তারা দীর্ঘদিন যাবৎ রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় মাদক ব্যবসা করে আসছে। গ্রেফতারকৃত আসামীরা জিজ্ঞাসাবাদে জানায় তারা বাড়তি আয়ের লোভে নিজেদেরকে মাদক ব্যবসায় জড়িয়েছে।

৩। অপরদিকে অন্য একটি আভিযানিক দল ১৭.২০ ঘটিকায় ডিএমপি ঢাকার মোহাম্মদপুর থানাধীন গøাস ফ্যাক্টরীর মোড়স্থ সুপার মার্কেট এর আলামিন ষ্টোরের সামনে একজন মাদক ব্যবসায়ী অবৈধ মাদকদ্রব্য নিজ হেফাজতে রেখে বিক্রয়ের উদ্দেশ্য অবস্থান করিতেছে। উক্ত সংবাদের সত্যতা যাচাইয়ের নিমিত্তে র‌্যাব-২এর আভিযানিক দল ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে আসামীরা দৌড়ে পালানোর চেষ্টা কালে মোঃ জাফর হোসেন চাঁদ(২৪)কে গ্রেফতার করা হয়। আটককৃত আসামীকে ইয়াবা সংক্রান্ত বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদে প্রথমে অস্বীকার করে। পরবর্তীতে আসামীর হাতে থাকা মোবাইলের প্যাকেটের মধ্যে হতে ৯০০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়। গ্রেফতারকৃত আসামীকে জিজ্ঞাসাবাদে জানায়, সে দীর্ঘদিন যাবৎ রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় মাদক ব্যবসা করে আসছে। ধৃত আসামীকে জিজ্ঞাসাবাদে আরও জানান, পরস্পর যোগসাজোসে দীর্ঘদিন যাবৎ সীমান্তবর্তী জেলা কক্সবাজার হইতে নিষিদ্ধ মাদক (ইয়াবা) ক্রয় করে রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় বিক্রয় করে আসছিল। ধৃত আসামীদের’কে জিজ্ঞাসাবাদে প্রাপ্ত গুরুত্বপূর্ণ তথ্য যাচাই বাছাই করে ভবিষ্যতে এ ধরনের মাদক বিরোধী অভিযান অব্যাহত থাকবে।

৪। উপরোক্ত বিষয়ে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

৫। আসামীর নাম ও ঠিকানাঃ
১। মোসাঃ রতœা বেগম (২৭), স্বামী- উকিল মিয়া, সাং- মাদারীপুর, থানা- শ্রীবর্দী, জেলা- শেরপুর, বর্তমান- কাওরান বাজার(কাওরান বাজার রেললাইন বস্তি), থানা- তেজগাঁও, ডিএমপি, ঢাকা।
২। ফিরোজা(৩৪),স্বামী- মোঃ সেলিম, সাং- ইবায়েতপুর মাঠপাড়া, থানা- গাইবান্ধা(সদর), জেলা- গাইবান্ধা, বর্তমান- কাওরান বাজার(কাওরান বাজার রেললাইন বস্তি), থানা- তেজগাঁও, ডিএমপি, ঢাকা।
৩। মোঃ জাফর হোসেন চাঁদ(২৪), পিতা- মৃত মাজাহার, সাং- ১/২২ রাজিয়া সুলতানা রোড, থানা- মোহাম্মদপুর, ডিএমপি, ঢাকা, বর্তমান- সাং- বছিলা ব্রীজ সংলগ্ন(চাঁন মিয়ার বাড়ীর ভাড়াটিয়া), থানা- মোহাম্মদপুর, ডিএমপি, ঢাকা।

লেঃ কর্ণেল ইমরান উল্লাহ সরকার, পিবিজিএম,পিবিজিএমএস
অধিনায়ক
র‌্যাব-২

নিউজটি শেয়ার করুন





সর্বস্বত্ব © ২০১৯ মাতৃভূমির খবর কর্তৃক সংরক্ষিত
Design & Developed BY ThemesBazar